শুক্রবার, ২৬ জুলাই ২০২৪, ১২:৩৭ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
সেন্টমার্টিনে মিয়ানমারের দুই সেনা ও ৩১ রোহিঙ্গার অনুপ্রবেশ ২ রোহিঙ্গা যুবকের দেহ তল্লাশিতে মিললো অস্ত্র গুলি টানা বর্ষণে কক্সবাজার শহরে জলাবদ্ধতা, পর্যটকদের দুর্ভোগ কক্সবাজার জেলা পরিষদের ১৪৬ কোটি ৮৩ লাখ টাকা বাজেট ঘোষণা কক্সবাজার আইকনিক রেলস্টেশনে নেটওয়ার্ক কোয়ালিটি টেস্ট কার্যক্রম পরিদর্শন করেছেন পলক আরসার জোন ও কিলিংগ্রুপ কমান্ডারসহ আটক ৩ পটিয়ায় যৌতুক নিয়ে তরুণীর আত্মহত্যা, হবু স্বামী গ্রেফতার  মহেশখালী হত্যা মামলার আসামী মাদ্রাসার সভাপতি হতে দৌঁড়ঝাপ চকরিয়ার চিংড়িজোনে বিপুল অস্ত্র ও কার্তুজসহ বাহিনী প্রধান বেলালসহ গ্রেফতার চার কক্সবাজারে রোহিঙ্গাদের জন্য ফ্রান্সের ১.৫ মিলিয়ন ইউরো অনুদানে ইউএনএইচসিআরের কৃতজ্ঞতা

ত্বকের সতেজতা ও টানটানভাব ফিরিয়ে আনুন

কক্সবাজার ৭১ ডেস্ক:

বয়স বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে সময়ের নিয়মেই মুখের টানটান ত্বকে আসে আলগাভাব। চোখের কোণে কুঞ্চন দেখা দেয়, ঠোঁটের পাশে দেখা দেয় হালকা স্মাইল লাইন। সূক্ষ্ম রেখা, বলিরেখা এ সব তো থাকেই, তার সঙ্গে মুখে একটা আলগা ঢিলেভাব দেখা দেয়। আসলে বয়সের সঙ্গে সঙ্গে কোলাজেনের ঘাটতির কারণে ত্বকের ইলাস্টিসিটি নষ্ট হতে শুরু করে, যার ফলে মুখের ত্বক আলগা আর ঢিলে দেখায়। আবার অনেক সময় বয়স কম হলেও অনিয়মিত খাওয়াদাওয়া, উশৃঙ্খল জীবনযাপনের কারণেও মুখের ত্বকে আলগাভাব দেখা দিতে পারে। অ্যান্টি-এজিং ক্রিম মেখে বলিরেখা কিছুটা সামাল দেওয়া যায়, মুখের আলগাভাবও কিছুটা টানটান হয়, কিন্তু চোখে পড়ার মতো বদল আনতে আপনাকে আরও একটু বেশি যত্নশীল হতে হবে। রইল কিছু টিপস।

ব্যায়াম করুন
নিয়মিত ব্যায়াম শুধু যে আপনার শরীরের মাসলগুলোকে সুঠাম করবে তাই নয়, এতে মুখের পেশিগুলোও টোনড হবে। ওয়েট ট্রেনিং, কার্ডিওর মতো ব্যায়াম শরীরের মতো মুখেও একটা টানটান সুডোল ভাব এনে দিতে পারে। এ ছাড়া মুখের কিছু ব্যায়াম করতে পারেন। নিয়মিত চিউয়িং গাম চিবোলেও মুখের পেশি টানটান থাকে।

স্বাস্থ্যকর খাবার খান
লকডাউনে বাড়িতে আছেন বলে একগাদা তেলমশলা দেওয়া রান্না বা ভাজাভুজি খাবেন না। খাবারের তালিকায় রাখুন মাছ, ডিম, বাদামের মতো আইটেম। তার সঙ্গে থাক ফল আর শাকসবজি। নিয়মিত সুষম খাওয়াদাওয়া করলে ত্বকের ইলাস্টিন আর কোলাজেন, দুটোই ভালো থাকবে।

স্কিন-ফার্মিং লোশন মাখুন
মুখের ত্বক টানটান সতেজ রাখতে নিয়মিত স্কিন-ফার্মিং লোশন মেখে দেখতে পারেন। কেনার সময়ে লেবেলে চোখ বুলিয়ে নিন, অ্যালো ভেরা, হ্যালিউরনিক অ্যাসিড, ভিটামিন সি, ভিটামিন এ বা ভিটামিন ই থাকলেই কিনে ফেলুন। এই লোশন ত্বক কোমল আর আর্দ্র রাখবে, কোলাজেন আর ইলাস্টিসিনের গঠনও ঠিক থাকবে।

নিয়মিত এক্সফোলিয়েট করুন
ত্বককে আর্দ্র রাখার পাশাপাশি পরিচ্ছন্নও থাকতে হবে। নিয়মিত ত্বক এক্সফোলিয়েট করুন, ড্রাই ব্রাশিং করলেও ত্বকের মৃত কোষ উঠে যায়। সি সল্ট স্ক্রাব ব্যবহার করতে পারেন। ত্বক টানটান রাখে সি সল্ট।

মাসাজ নিন
শারীরিক, মানসিক ক্লান্তি ভুলিয়ে দেওয়ার পাশাপাশি ত্বকে রক্ত সঞ্চালন বাড়াতেও কাজে লাগে মাসাজ। পছন্দের ক্রিম বা লোশন দিয়ে মুখের ত্বকে ধীরে ধীরে মাসাজ করলে ত্বক উজ্জ্বল আর টানটান হয়ে উঠবে। জেড রোলার থাকলে তা দিয়ে মাসাজ করতে পারেন, নয়তো আঙুলের ডগা দিয়ে চেপে চেপে বৃত্তাকারে মুখ মাসাজ করুন, উপকার পাবেন।

প্রচুর জল খান
ত্বক টানটান রাখতে জলের ভূমিকা কতটা, সে তো সকলেই জানেন। শরীর হাইড্রেটেড থাকলে ত্বকের উজ্জ্বলতা আর ইলাস্টিসিটি দুটোই বাড়বে। অন্তত ছ’ থেকে আট গেলাস জল খান, কিছুদিনের মধ্যেই তফাত বুঝতে পারবেন।

৭১/এমইউএন