সংবাদ শিরোনাম :
সুগন্ধা পয়েন্টে উচ্ছেদ হওয়া অর্ধশতাধিক দোকান থেকে কোটি কোটি টাকা ভাগবাটোয়ারা করেছে প্রভাবশালীরা শহরে প্রধান সড়ক প্রশস্ত করতে দুই পাশের সীমানা নির্ধারণ কাজের উদ্বোধন উত্তর নলবিলায় গৃহবধূকে খুন করে মাটিতে পুঁতে রাখার ঘটনার নেপথ্যে হাসান বশির পরিবার রাত পোহালেই আলোচিত কুতুপালং ৯ নম্বর ওয়ার্ডের উপনির্বাচন জেলা প্রশাসনের উদ্যোগে শিশু একাডেমি আয়োজিত শেখ রাসেলের ৫৬ তম জন্মবার্ষিকী পালিত শহরের সাহিত্যিকা পল্লীর গরুর হালদা এলাকায় দু’টি পাহাড় কেটে তুলার গোডাউন ও ভবন নির্মাণ সাবেক শিল্প প্রতিমন্ত্রীসহ দুদকের জালে ৮ এমপি উচ্ছেদ আতঙ্কে লিংকরোড বৃহত্তর মুহুরীপাড়ার ৫ শতাধিক পরিবার রোহিঙ্গা সন্ত্রাসীদের অস্ত্রের যোগানদাতা কে? খুটাখালীতে সড়ক দূর্ঘটনায় নিহত-১, আহত-১২
সাংবাদিক নাম ভাঙিয়ে অপকর্ম : বিব্রত পেশাদার সাংবাদিকরা

সাংবাদিক নাম ভাঙিয়ে অপকর্ম : বিব্রত পেশাদার সাংবাদিকরা

মুহাম্মদ তাহের নঈম:

করোনা ভাইরাসের লকডাউনের আগে থেকেই কক্সবাজারের স্থানিয় প্রিন্ট পত্রিকা বন্ধ ও জাতীয় পত্রিকা গুলো কক্সবাজারে আসা বন্ধ হওয়ার পর শুর“ হয় নামে বেনামে লাইভ টিভি ও নিউজ পোর্টাল খোলার হিড়িক।

ঘরবন্ধি মানুষের একমাত্র পথ ছিলো অনলাইনে সংবাদ দেখা। আর সেই সুযোগকে কাজে লাগাতে শুর“ হয় ফেসবুকে একটি পেইজ খুলে যে কোন একটি নাম দিয়ে টিভির যাত্রা। কক্সবাজার নয় গোটা দেশ জুড়েই শুর হয়েছে এই চোঁয়া নামক অপসাংবাদিকতার ব্যবসা। এক জরিপে দেখা যায়, পাঠকের চেয়ে টিভি-পোর্টালের মালিক বা সাংবাদিক বেশি। এদের বন্ধ করবে কে? প্রশ্ন সচেতন মহলের। কোন কিছুর তোয়াক্কা না করেই শুর“ হয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল ও টিভি খোলার হিড়িক। বর্তমানে এই নামে বেনামে লাইভ টিভি ও ভুইফোড় নিউজ পোর্টালের কারণে কক্সবাজারের সাংবাদিকতা আজ হুমকির মুখে।

এই পোর্টাল ও টিভির মালিকরা ফেসবুকে শুরু করছে প্রতিনিধি নিয়োগের নামে বাণিজ্য! অনেকেই ইয়াবা ব্যবসাকে আড়াল করতে টাকার বিনিময়ে অনলাইন টিভি ও অনলাইন নিউজ পোর্টালের সংবাদকর্মী পরিচয়ে চাঁদাবাজি এলাকায় আধিপত্য বিস্তার করছে।

দেখা গেছে, কক্সবাজারের সিনিয়র রাজনৈতিক নেতারা এবং সামাজিক সংগঠক ও প্রশাসনের উচ্চ পদস্থ কর্মকর্তাও এসকল টিভি নামক ফেসবুক পেইজে লাইভে যুক্ত হন।
যাদের দেখার পর মানুষ একবার হলেও এসকল পেইজে লাইক ও কমেন্ট করতে বাধ্য হয়। এরমধ্যে হাতেগোনা কয়েকটি অনলাইন টিভি ও ফেসবুক পেইজ কক্সবাজারের কয়েকজন সিনিয়র সাংবাদিক পরিচালনা করছেন। যাদের মাধ্যমে পাঠক ভালো ভালো সংবাদ দেখতে পারছে এবং সমাজের সঠিক খবরাখবর জানতে পরছে। এ ছাড়া সবকটা হচ্ছে একমাত্র ধান্দা। এরাই মানুষকে ধোকা দিয়ে নিয়োগ বাণিজ্য করছে। লাইভে আসার পর সঠিক করে কথা বলা তো দূরের কথা এদের চেচামেচিতে মানুষ আর বিরক্ত হয়। রাস্তায় বের হলেই দেখা যায় এই অসাধু টিভি সাংবাদিকদের। চলাফেরা অনেকটা জাতীয় স্যাটেলাইট টিভির চেয়ে কোন ভাবেই কম নয়।
অন্যদিকে সারা দেশে ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকা আরেক চক্র শত শত ফেসবুক পেইজ ও পোর্টালের অসাধু মালিকরা বোষ্টিংয়ের মাধ্যমে ফেসবুকে বিজ্ঞাপন দেন, জরুরি ভিত্তিতে সাংবাদিক নিয়োগ দেওয়া হবে, অথবা আপনি কি সাংবাদিক হতে চান এবং আমরা কিছু সংখ্যক সাংবাদিক নিয়োগ দিচ্ছি বলে প্রচারণা চালায়। সাথে দেওয়া থাকে যোগাযোগের জন্য মোবাইল নম্বার। এমন ভাবে তারা বিজ্ঞাপন প্রচার করছেন যা দেখে যে কোন লোক তাদের প্রতারণার ফাঁদে পড়ে। তাদের সাথে যোগাযোগ করার সাথে সাথে বানিয়ে দেন বড় সাংবাদিক এবং সাথে একটি কার্ড দিয়ে হাতিয়ে নেন বড় অংকের টাকা। এরপর যাকে বড় সাংবাদিক বানানো হয় সে হয়ে যায় সাংবাদিক নামধারী শীর্ষ চাঁদাবাজ।
অনুসন্ধানে দেখা গেছে,সর্বত্র নামে বেনামে লাইভ টিভি ও নিউজ পোর্টাল খোলার হিড়িক পড়েছে কক্সবাজার সহ সারা দেশেই। এ সব টিভির সাথে জড়িয়ে পড়ছে সীমান্তের মাদক ব্যবসায়ী,সন্ত্রাসী,মানবপাচারকারী সহ নানা অপরাধীরা। আর এদের কারণে মানুষ সঠিক সংবাদ থেকে বঞ্চিত হচ্ছে এবং এরাই লাইক পাওয়ার জন্য না বুঝে যে কোন মিথ্যা সংবাদ প্রকাশ করে ও দ্রুত ফেসবুকে যে কোন ধরণের গুজব ছড়ায়। কক্সবাজারের কয়েকজন সিনিয়র সাংবাদিক প্রতিবেদক কে জানায়, এখন সিনিয়র সাংবাদিকদের কোন দাম বা কদর নেই। ইচ্ছামত দিনে দিনে সাংবাদিক বনে যাওয়া দুর্বৃত্তরা সাংবাদিক পরিচয়ে প্রশাসনের রন্দ্রে রন্দ্রে ঘুরছে। কোথায় নীতি নৈতিকতা, কোথায় শিক্ষাগত যোগ্যতা, কোথায় মহান সাংবাদিকতার প্রশিক্ষণ! মফস্বল এলাকায় এসব অপ সাংবাদিকতার প্রভাব বেশী।
এদিকে পর্যটনরাজধানী কক্সবাজার সহ সারা দেশে অবৈধ অনলাইন টিভির পরিচয়ে চাদাঁবাজি করার সময় আইনশৃংখলা রক্ষাবকারী বাহিনীর হাতে টেভিশনের নামী দামী ক্যামরা,লগো সহ অনেক ভুঁয়া সাংবাদিক আটকের খবর ও কম নেই। প্রতিদিন কোন না কোন জায়গায় ধরা পড়ছে এ সব অপসাংবাদিকের চক্র। সম্প্রতি
কক্সবাজারে চ্যানেল-২৪ এর সাংবাদিক পরিচয় দিয়ে কাস্টম অফিসে চাঁদাবাজি করতে গিয়ে আটক হয় মো. হারুন (৩৫)।
শহরের কাস্টম অফিস থেকে স্থানীয় সাংবাদিকদের সহায়তায় পুলিশ তাকে আটক করে।
আটক যুবক শহরের মোহাজেরপাড়া এলাকার বাসিন্দা।কক্সবাজার সদর থানার ওসি জানায়, আটক হারুন দীর্ঘদিন ধরে বিভিন্ন পত্রিকা, টেলিভিশন ও অনলাইন নিউজ পোর্টালের পরিচয়পত্র, ভিজিটিং কার্ড ও টেলিভিশনের লগো তৈরি করে বিভিন্ন স্থানে চাঁদাবাজি করে আসছিল। আরেক অভিযানে
ইয়াবা ব্যবসাকে আড়াল করতে টাকার বিনিময়ে অনলাইন টিভি ও অনলাইন নিউজ পোর্টালের সংবাদকর্মী পরিচয়ে চাঁদাবাজি, সাধারণ মানুষকে হুমকি, প্রতারণাসহ বিভিন্ন অভিযোগে সাখাওয়াত হোসেনকে আটক করেছে কক্সবাজার সদর মডেল থানা পুলিশ।
বুধবার দুপুরে কক্সবাজার শহরের বৈদ্যঘোনা এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাকে আটক করা হয়। আটক সাখাওয়াত টেকনাফ উপজেলার বাহারছড়া ইউনিয়নের ৫ নং ওয়ার্ড দক্ষিণ শীলখালী চৌকিদার পাড়ার নুরুল কবির প্রকাশ বাদশা মিয়ার ছেলে। এরআগে মঙ্গলবার রাতে কক্সবাজার শহরের সমিতিপাড়ায় নিরীহ মানুষকে ইয়াবা ব্যবসায়ী বলে সংবাদ প্রকাশের হুমকি দিয়ে টাকা আদায় কালে জনরোষের শিকার হয়েছে সংবাদকর্মী নামধারী ৪ প্রতারক। তবে স্থানীয়রা জানান, গণধোলাই কালে সাখাওয়াত হোসেনসহ তিন চাঁদাবাজ কৌশলে পালালেও মনছুর আলম মুন্নাকে আটক করে পুলিশের কাছে সোপর্দ করে বিক্ষুব্ধ জনতা। গত ১১মার্চ ২০ এঘটনা ঘটেছে। আটক সাখাওয়াত নিজেকে অনলাইন পল্লী টিভি ও পরিকল্পিত বার্তার সাংবাদিক পরিচয়ে ব্যাপক চাঁদাবাজি করে আসছিল। এলাকাবাসী জানান, ৫/৬ জনের একটি সংঘবদ্ধ অপরাধী চক্র দীর্ঘদিন ধরে সাধারণ মানুষকে হুমকি দিয়ে টাকা আদায়ের ঘটনা ঘটিয়ে আসছিল। বরাবরের মতো মঙ্গলবার (৯ মার্চ) বিকাল ৫ টার দিকে চাঁদাবাজি করতে গিয়ে কুতুবদিয়াপাড়া বাসীর রোষানলে পড়ে। জনতার ধাওয়া খেয়ে প্রথম দফায় চাঁদাবাজ দুই যুবক পালিয়ে রক্ষা পায়। পরে রাত ৯ টার চাঁদাবাজি করতে গিয়ে স্থানীয় জনতা তিনজনকে আটক করে গণধোলাই দেয়। কৌশলে ৩ জনই পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে। পরে ধাওয়া করে কথিত সংবাদকর্মী মনছুর আলম মুন্নাকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করা হয়। অপর দিকে বন্দর নগরীর ইপিজেড এলাকার এক ব্যক্তির কাছে চাঁদা আদায় করতে গিয়ে আটক হয়েছে সরফুদ্দিন চৌধুরী (রুমেল) নামে এক ভুয়া সাংবাদিক। পুলিশ এ ভুয়া সাংবাদিকের কাছ থেকে সাপ্তাহিক চাটগারঁ পত্রিকা, সিটিজি ক্রাইম টিভি (অনলাইন), দি ক্রাইমসহ কিছু অখ্যাত পত্র পত্রিকার পরিচয়পত্র উদ্ধার করে। কক্সবাজারে এসএ টিভি’র ভুঁয়া সাংবাদিক পরিচয় দেয়ার অভিযোগে আবছার ও আজিজ নামে দুই যুবককে আটক করেছে পুলিশ। সম্প্রতি শহরের হলিডে মোড় এলাকার এসএ পরিবহন অফিস থেকে তাদের আটক করা হয়। এসময় আটককৃতদের কাছ থেকে একটি ক্যামেরা ও একটি মোটর সাইকেল জব্দ করে পুলিশ।
চট্টগ্রামের পটিয়ায় তিন ভূয়া সাংবাদিককে আটক করেছে পটিয়া থানা পুলিশ।
সিটিজি ক্রাইম টিভি’র সাংবাদিক পরিচয় দিয়ে পটিয়া থানার ওসি (তদন্ত) রেজাউল করিম মজুমদারের কাছে গিয়ে হুমকি-ধমকি ও পরবর্তীতে চাঁদা দাবি করলে তাদের আটক করে পুলিশ।
গ্রেফতারকৃতরা হলেন, শাহেদুল ইসলাম সাগর (৩০), রতন বড়ুয়া (৪৩) ও গাড়িচালক আনোয়ার হোসেন (৩৩)।
এসময় প্রভোক্স জিএল ব্র্যান্ডের সিটিজি ক্রাইম স্ট্রিকার লাগানো একটি গাড়ি (চট্টমেট্রো গ- ১২-৬৫৮২) ও আইডি কার্ড, ভিডিও ক্যামরা, মোবাইল, বেশ কিছু ভিজিটিং কার্ড উদ্ধার করা হয়।
এছাড়া সাংবাদিক নিয়োগের নামে টাকা হাতিয়ে নেয়া ও প্রতারণার অভিযোগে সাভারে নিউজটিভিবাংলা নামে একটি ভুয়া অনলাইন টিভি চ্যানেলের অফিসে অভিযান চালিয়েছে র‌্যাব-৪ এর একটি দল। এসময় অফিস থেকে আটক করা হয়েছে অনলাইন টিভি চ্যানেলটির প্রধান ও প্রতারক দিদারুল ইসলাম দিদারসহ মোট ৪ জনকে। এদের মধ্যে দুই জন নারীও রয়েছে। এছাড়া অফিসে তল্লাাশী চালিয়ে প্রতারণার ৯০ হাজার টাকা, ইয়াবা, বিদেশী মদও পাওয়া গেছে বলে জানিয়েছে র‌্যাব। গত ০৫ সেপ্টেম্বর রাতে সাভারের হেমায়েতপুরের মোল্লা মার্কেটের তৃতীয় তলায় ওই ভুয়া অনলাইন টিভি চ্যানেলের অফিসে অভিযান চালায় র‌্যাব-৪। আটককৃতরা হলো: দিদার, আসমা রিতু, ওয়াশিম হোসেন ও মাহাবুবা বেগম। এভাবে দিন দিন কক্সসবাজারসহ দেশে নামে-বেনাম বেড়েই চলছে অনলাইন টিভি ও পোর্টালের সীমাহীন দৌরাত্ম্য। কক্সবাজারের এক প্রবীণ সায়বাদিক প্রতিবেদক কে জানান, তথ্য- প্রযুক্তির অবাধ ব্যবহারের সুযোগকে যারা অপব্যবহার করছে, প্রতারণামূলক কাজে সাংবাদিকতাকে ব্যবহার করছে তাদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা গ্রহণ করা উচিত।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

বিশ্বজুড়ে করোনাভাইরাস

বাংলাদেশে

আক্রান্ত
১৭৮,৪৪৩
সুস্থ
৮৬,৪০৬
মৃত্যু
২,২৭৫

বিশ্বে

আক্রান্ত
৪০,৮৮৭,৪৬১
সুস্থ
৩০,৪৯১,৪৮৯
মৃত্যু
১,১২৬,৫২৩
সর্বশেষ (গত ২৪ ঘন্টার রিপোর্ট)
আক্রান্ত
মৃত্যু
সুস্থ
পরীক্ষা
২,৯৪৯
৩৭
২,৮৬২
১৩,৪৮৮
সর্বমোট
১৭৮,৪৪৩
২,২৭৫
৮৬,৪০৬
৯০৪,৫৮৪

একাত্তর পত্রিকার প্রতিনিধি সভা

dainikcoxsbazarekattor.com © All rights reserved