সংবাদ শিরোনাম :
পেকুয়ায় ডাম্পার-সিএনজি মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত-২, আহত-৪ সৈকতে শতাধিক প্রতীমা বিসর্জন আসছে মাদক, ফিরছে কারবারীরা! ডাকাত সর্দার নজরুল বাহিনীর অবৈধ অস্ত্রের মুখে নাপিতখালী ভিলেজার পাড়ার বদি আলমের বাড়িতে ডাকাতি, থানায় এজাহার দায়ের জেলার আইনশৃংখলার উন্নয়নে পুলিশের পাশাপাশি সাংবাদিকদেরও এগিয়ে আসার আহবান ইয়াবায় আন্ডার মেট্টিক ডেন্টাল চিকিৎসক গফুরের আলিশান জীবন করোনামুক্ত হলেন রামুর স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা আবু বক্কর টানা ভারী বর্ষণে তলিয়ে গেছে পর্যটন শহর-চরম দুর্ভোগে সাধারণ মানুষ মানবতার বিপরিতে ভয়ংকর হয়ে উঠেছে রোহিঙ্গারা! হুমকির মুখে সেন্টমার্টিন দ্বীপের জীববৈচিত্র্য
বেকার সুমনের ইয়াবা যাদুতে শুন্য থেকে কোটিপতি

বেকার সুমনের ইয়াবা যাদুতে শুন্য থেকে কোটিপতি

নিজস্ব প্রতিবেদক:

শহিদুল ইসলাম সুমন অভাবের তাড়নায় কোন কিছু করার উদ্দ্যেশে নিজ গ্রাম পোকখালী ইউনিয়নের পূর্ব গোমাতলী এলাকা ছেলে প্রায় ২ বছর আগে চলে আসেন শহরের পাহাড়তলী এলাকায়। পাহাড়তলী এলাকার স্থাানীয় সমাজ সেবক ও ব্যবসায়িদের দাবী সুমন আগে রিক্সা ভাড়া দিতে পারতো না সামর্থের অভাবে।

কিন্তু এখন সুমন কয়েক কোটি টাকার মালিক। বর্তমানে সম্পদের মধ্যে রয়েছে নিজস্ব এসি হাইস মাইক্রো যার দাম ৩১ লাখ টাকা, নিজস্ব ২ টি এফ জেড মটর সাইকেল যার মূল্য আনুমানিক ৫ লাখ,এছাড়া সুমন পাহাড়তলী এলাকার রহমানিয়া মাদ্রাসার সামনে নিজস্ব জমি কিনে ২ তলা বাড়ি করেছে যার মূল্য আনুমানিক অর্ধ কোটি টাকা। তাছাড়া ঘরে এসি সহ শুভাপাচ্ছে মূল্যবান সামগ্রি। এদিকে এলাকাবাসীর দাবী সুমন কিছু দিন রহমানিয়া মাদ্রাসার সামনে একটি বাড়িতে ভাড়া থাকতো তখন প্রায় সময় মাঝ রাতে তার কর্মকান্ড সন্দেহ হলে একদিন রাতে তার বাড়ির সামনে মাইক্রো থেকে বস্তা নিয়ে কিছু একটা উঠানামা করার দৃশ্য ধারন করা হয়।

পরে এলাকাবাসী তদন্ত করে দেখা গেছে সুমন দীর্ধ দিন ধরে ইয়াবা ব্যবসায় জড়িত। আর ইয়াবার কল্যাণেই হঠাৎ করেইবিপুল টাকার মালিক বনে গেছে সুমন। এদিকে তার নিজ গ্রাম পূর্ব গোমাতলীতে খবর নিয়ে জানা গেছে সুমনের পিতা তসুমুদ্দিন প্রকাশ তসু প্রকৃত পক্ষে নোয়াখালী থেকে আসা সে এখানে ঘর জামাই হিসাবে থাকতো তার মায়ের নাম মরিয়ম। তার ভাই বোনদের অবস্থাা তেমন ভাল ছিল না। কিন্তু বর্তমানে সুমন হঠাৎ করে গাড়ী নিয়ে এলাকায় এসে ভাব দেখিয়ে চলে এবং মসজিদ মাদ্রাসায় দান করে নিজেকে বড়দানবীর হিসাবে দেখাতে চাইছে। এদিকে পূর্ব গোমাতলী এলাকা স্থাানীয় লোকজনের দাবী সুমন এলাকায় থাকতেই ইয়াবা ব্যবসার সাথে জড়িত হয়ে পড়েছিল পরে এলাকার মানুষজনের কাছে জানাজানি হওয়াতে সে এলাকা থেকে চলে গিয়েছিল। এদিকে সুমনের এক নিকট আত্বীয় বলেন, আমরা অনেক আগে থেকেই জানতাম তার ইয়াবা ব্যবসার কথা সে জন্য তার পরিবারের সাথে অনেকটা সম্পর্ক কমিয়ে দিয়েছিলাম। এ ব্যপারে শহিদুল ইসলাম সুমন জানান,আমি চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনে ঠিকাদারী করি। আমার লাইসেন্সের নাম মরিয়র ট্রেডাস। আপনারা গিয়ে খোঁজ নেন। আর আমার ব্যাপারে যা বলা হচ্ছে তা সঠিক নয়। এদিকে চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন ঠিকাদার সমিতির সভাপতি মোস্তাফিজুর রহমান বলেন,শহিদুল ইসলাম সুমন নামে কক্সবাজারে বাড়ি কোন ঠিকাদারকে আমি চিনিনা। আর সিটি কর্পোরেশনের স্থাানীয় রাজনৈতিক লোকজন বহু বছর ধরে ঠিকাদারী করে এখনো সংসার চালাতে পারছেনা সেখানে সিটি কর্পোরেশনে ঠিকাদারী করে হঠাৎ করে এত টাকার মালিক বনে যাওয়া অসম্ভব। এ ব্যপারে কক্সবাজারের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোঃ রফিকুল ইসলাম বলেন,মাদক কারবারীদের বিষয়ে আমাদের গোয়েন্দা নজরদারী রয়েছে খুব শিঘ্রই আমরা চিরুনী অভিযানে যাবো।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

বিশ্বজুড়ে করোনাভাইরাস

বাংলাদেশে

আক্রান্ত
১৭৮,৪৪৩
সুস্থ
৮৬,৪০৬
মৃত্যু
২,২৭৫

বিশ্বে

আক্রান্ত
৪৫,০৩৬,৪১০
সুস্থ
৩২,৮৪৮,৬৫১
মৃত্যু
১,১৮২,৫৪১
সর্বশেষ (গত ২৪ ঘন্টার রিপোর্ট)
আক্রান্ত
মৃত্যু
সুস্থ
পরীক্ষা
২,৯৪৯
৩৭
২,৮৬২
১৩,৪৮৮
সর্বমোট
১৭৮,৪৪৩
২,২৭৫
৮৬,৪০৬
৯০৪,৫৮৪

একাত্তর পত্রিকার প্রতিনিধি সভা

dainikcoxsbazarekattor.com © All rights reserved